অ্যালিয়াম শ্রেণীর (পেঁয়াজ, রসুন ইত্যাদি) উদ্ভিদ চাষ

Updated December 16, 2020

পেঁয়াজ রসুন স্যালুট ইত্যাদির উদ্ভিদ হল অ্যালিয়াম শ্রেণীর অন্তর্গত। এদের তীব্র এবং ঝাঁঝালো স্বাদের জন্য দীর্ঘদিন যাবত এসব উদ্ভিদ এর বিভিন্ন অংশ প্রতিনিয়তই রান্নার কাজে ব্যবহৃত করা হয়ে থাকে। এ কারণে বাগান করার ক্ষেত্রে অনেকেই শখ করে অ্যালিয়াম শ্রেণীর উদ্ভিদ রোপণ করে থাকেন এবং মোটামুটি অল্প জায়গা থেকেই বেশ ভালো পরিমাণ ফলন পাওয়া সম্ভব হয়।

অ্যালিয়াম উদ্ভিদ চাষের ক্ষেত্রে নিম্নোক্ত বিষয়গুলো বিবেচনায় রাখা উচিতঃ

  • অ্যালিয়াম উদ্ভিদের জন্য উর্বর এবং কিছুটা ঝরঝরে ধরনের মাটি প্রয়োজন পড়ে। তাছাড়া, সেচ দেওয়া পানি নিষ্কাশনের জন্য পর্যাপ্ত ব্যবস্থা যেন থাকে, সেটি নিশ্চিত করতে হয়।
  • অ্যালিয়াম উদ্ভিদের ক্ষেত্রে সাধারণত শরৎ বা হেমন্তের সময় বীজ রোপন করা হয় যাতে বসন্তের পরপর ফলন সংগ্রহ করা যায়। কিন্তু, প্রজাতি ভেদে বিভিন্ন উদ্ভিদের জন্য রোপন করার এবং ফলনের সময়ে বেশ কিছু তারতম্য হতে পারে।
  • অ্যালিয়াম উদ্ভিদের ক্ষেত্রে নিশ্চিত করতে হয় যাতে জমি আগাছামুক্ত থাকে এবং পর্যাপ্ত পরিমাণে সেচের ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে হয়। তার পাশাপাশি পর্যাপ্ত পরিমাণ সার দিয়ে জমির পুষ্টি এবং উর্বরতা বজায় রাখতে হয়। অ্যালিয়াম উদ্ভিদের ক্ষেত্রে সাধারণত ফসফরাস যুক্ত সার ব্যবহার করা হয় যার ফলশ্রুতিতে উদ্ভিদের ফলগুলো আকারে বড় হয়। 
  • অ্যালিয়াম উদ্ভিদের ক্ষেত্রে আরেকটি ব্যাপার মাথায় রাখতে হয় যা হচ্ছে এ জাতীয় উদ্ভিদ চাষ করার সময় যাতে কীটনাশক যতটা সম্ভব কম পরিমাণে ব্যবহার করা যায়, ততটাই ভালো। কারণ অ্যালিয়াম জাতীয় উদ্ভিদের ফল গুলো সাধারণত খাবার হিসেবে গ্রহণ করা হয় এবং রান্নার বিভিন্ন উপকরণ হিসেবে ব্যবহার করা হয়।
  • সাধারণত, পেঁয়াজের ক্ষেত্রে বিশেষ কিছু কীটপতঙ্গের আক্রমণ লক্ষ্য করা যায়। এগুলো মূলত পেঁয়াজের গোড়ালি এবং বাল্বগুলোকে আক্রমণ করে থাকে। তাই অ্যালিয়াম শ্রেণীর উদ্ভিদ চাষ করার ক্ষেত্রে বিশেষত পিয়াজের ক্ষেত্রে কীটপতঙ্গের ব্যাপারে কিছুটা সাবধানে থাকা উচিত। 
  • যেহেতু এই জাতীয় উদ্ভিদ খাবারে ব্যবহার করা হবে তাই সার নির্বাচনের ক্ষেত্রেও যতটা সম্ভব জৈব সার নির্বাচন করাই উত্তম। তারপরও যদি মাটিতে পুষ্টিহীনতার কারণে অজৈব সার বা রাসায়নিক সার ব্যবহার করার প্রয়োজন পরে, তাহলে যতটুকু সম্ভব কম পরিমাণে অজৈব সার ব্যবহার করা উচিত। অ্যালিয়াম ছাড়াও মোটামুটি সকল খাদ্য শস্যের জন্য অজৈব সারের তুলনায় জৈব সার ব্যবহার করাই শ্রেয়।
Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *